রবিবার, নভেম্বর ১৭

ডেঙ্গি হওয়ার আগে এই সাত খাবারে ভরসা রাখুন, প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়িয়ে নিন সহজেই

দ্য ওয়াল ব্যুরো: প্রতি বছরই ডেঙ্গিতে আক্রান্তের সংখ্যা লাফিয়ে লাফিয়ে বাড়ছে।  আর মানুষের মধ্যে আতঙ্কও পাল্লা দিয়ে চড়ছে।  মশা তো কামড়াবেই। কার বাড়িতে টবে জল জমছে, কোথায় চৌবাচ্চা পরিষ্কার করা হচ্ছে না ইত্যাদি বিষয়ে নিজেরা সচেতন না হলে এই সমস্যা কমার কোনও সম্ভাবনাও নেই।  কিন্তু আমরা যদি ভিতর থেকে নিজেদের এমনভাবে তৈরি করি যেখানে ভাইরাস ব্যাকটিরিয়া চট করে নিজেদের কেরামতি দেখাতে পারবে না, তাহলে তো অনেকটাই মুশকিল আসান।  এমন কিছু খাবার আছে যা আপনার ডেঙ্গি প্রতিরোধে সাহায্য করতে পারে।  জেনে নিন সেগুলো কী?

যে কোনও টক খাবার
টক মানেই সেখানে ভিটামিন সি থাকবে, তা নতুন করে বলার কিছু নেই।  এই ভিটামিন সি আমাদের শরীরে শ্বেত রক্তকণিকার উৎপাদনে সাহায্য করে।  শ্বেত রক্তকণিকা যে রোগপ্রতিরোধে আমাদের সাহায্য করে তা আমাদের অনেকেরই জানা।  এ জাতীয় খাবারে থাকা অ্যান্টিঅক্সিডেন্টও আমাদের অনেক কাজে লাগে।  বেশ কিছু যৌগ আছে, যেগুলো আমাদের দেহের রক্তের প্রবাহ ঠিক রাখতে দেয় না।  সেই সব যৌগগুলোকে আটকে দেয় এই অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট।  তাই রক্তের কোনও সমস্যা এগোতে পারে না।  ডেঙ্গিও কাবু হয়।  কমলালেবু, বাতাবিলেবু, কিউয়ি, পাতিলেবু খেলে এই অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট পাওয়া যাবে সহজেই।

রসুন
রসুনে সালফার আছে, তা তো জানেন।  এই সালফারের জন্যই ওই ঝাঁজালো গন্ধ পান।  তাই অনেকে রসুন এড়িয়েও যান।  কিন্তু এই সালফারই তো আপনাকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে।  রসুন আমাদের সকলেরই রান্নাঘরে থাকে।  তাই এতে কোনও সমস্যাও নেই।  রোজই খান রসুন।  যে কোনও সংক্রমণ আটকাতে এই সালফার কাজে আসে।  অ্যান্টিব্যাকটিরিয়াল, অ্যান্টিফাঙ্গাল কোয়ালিটি আছে রসুনের।  তাই ডেঙ্গি প্রতিরোধে রসুন কিন্তু বেশ কার্যকরী।

দই
দইতে যে পরিমাণ প্রোবায়োটিক আছে, তা আমাদের রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা অনেকটাই বাড়িয়ে দেয়।  দিনের যে কোনও সময়েই আপনি দই খেতেই পারেন।  হজমেও সাহায্য করে দই।  ডেঙ্গি প্রতিরোধ করার জন্য যেটুকু প্রতিরোধ ক্ষমতা দরকার সেটা দই খেলেও আপনার মধ্যে তৈরি হতে পারে।

পালংশাক
যে কোনও সবুজ শাক-সবজি হয় তো আপনি ভালোবাসেন, কিন্তু ভিটামিন সি, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, বিটা কেরোটিন কিসে আছে জানেন কি? পালংশাকে।  এই শাক আপনি যত খাবেন, তত এই উপাদানগুলো শরীরে যাবে, রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা গড়ে উঠবে আপনার।  আর এতে থাকা ফাইবার আপনার ওজন কমাতেও সাহায্য করে।  ডেঙ্গি প্রতিরোধে আপনি খেতেই পারেন পালংশাক।

আমণ্ড
ভিটামিন ই তে ভরপুর আমণ্ড।  এছাড়াও বেশ কিছু প্রয়োজনীয় নিউট্রিয়েন্ট আছে।  সারা দিনে কয়েকটা আমণ্ড খেলে আপনার হার্টও থাকবে ভালো।  তাই প্রতিরোধ ক্ষমতা যখনই ভালো করতে চাইবেন, ডেঙ্গি থেকে নিজেকে দূরে রাখতে চাইবেন, তখনই ভরসা রাখুন আমণ্ডের উপর।

হলুদ
হলুদের অ্যান্টিইনফ্লেমেটরি গুণ যে কোনও রোগ প্রতিরোধে আপনাকে সাহায্য করতে পারে।  তাই ডেঙ্গির মরশুমে আপনি রোগ হওয়ার আগে থেকেই হলুদ যদি খান, ডেঙ্গি হওয়ার সম্ভাবনা অনেকটাই কমে যেতে পারে।  রান্নায় হলুদ তো খানই।  সঙ্গে পারলে দুধে হলুদ মিশিয়েও খেতেই পারেন।

আদা
ডেঙ্গির উপসর্গের মধ্যে গলা খুশখুশ, বমি বমি ভাব, শরীরের ভিতরটা জ্বালা করা ইত্যাদি রয়েছে।  আদা খেলে আপনার রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়বে।  আর এই সমস্যাগুলোও থাকবে না।  শুধু আদা না খেতে পারলেও, আদা চা তো খেতেই পারেন।  তাতে কিছুটা হলেও উপকার পাবেন আপনি।

অতএব এমন কিছু জিনিস, যা আপনার হাতের কাছেই থাকে রোজ, সেগুলোতে ভরসা করলেই ডেঙ্গি প্রতিরোধে আপনি খানিকটা এগিয়ে থাকতে পারেন।  তারপরেও হয়ে গেলে তো অবশ্যই ডাক্তারের কাছে যেতেই হবে আপনাকে।  করতে হবে প্রয়োজনীয় চিকিৎসা।

Comments are closed.