শুক্রবার, অক্টোবর ১৮

তৃণমূল বিজেপি কোন্দল, ছেলেকে লক্ষ্য করে ছোড়া গুলি লাগল বাবার

দ্য ওয়াল ব্যুরো, দক্ষিণ ২৪ পরগনা : পঞ্চায়েতের উপপ্রধানকে লক্ষ্য করে ছোড়া গুলি লক্ষ্যভ্রষ্ট হয়ে লাগল তাঁর বাবার গায়ে। আশঙ্কাজনক অবস্থায় ওই বৃদ্ধকে ডায়মন্ডহারবার হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। পরে পাঠানো হয় কলকাতায়।

সোমবার রাতে বাবা মাকে নিয়ে বিয়েবাড়ি থেকে ফিরছিলেন কেচারপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের উপপ্রধান বিধানচন্দ্র লস্কর। মন্দিরবাজার থানার খোর্দ্দমহাদেবপুরের কাছে চার পাঁচজন দুষ্কৃতী তাঁদের ঘিরে ধরে। অভিযোগ, মুখে কাপড় বাঁধা ওই দুষ্কৃতীরা বিধানবাবুকে লক্ষ্য করে তিন রাউন্ড গুলি চালায়। অন্ধকারে সেই গুলি লাগে তাঁর বাবা সুন্দরমোহন লস্করের গায়ে। তাঁর বাঁ কাঁধে একটি ও ডান হাতে দুটি গুলি লাগে। পরে বোমাবাজি করে এলাকা থেকে পালায় ওই দুষ্কৃতীরা।

তিনজনের চিৎকার শুনে ছুটে আসেন আশেপাশের লোকজন। তাঁরাই আশঙ্কাজনক অবস্থায় ৭০ বছরের ওই বৃদ্ধকে ডায়মন্ডহারবার হাসপাতালে নিয়ে যান।  বিধানবাবুর অভিযোগ, পঞ্চায়েত নির্বাচনের পর থেকেই এলাকার বিজেপি কর্মীরা তাঁকে খুনের হুমকি দিচ্ছে। এ দিনও তাঁরাই হামলা চালিয়েছে। স্থানীয় চার বিজেপি কর্মীর বিরুদ্ধে থানায় অভিযোগ জানিয়েছেন তিনি।

তবে বিজেপির জেলা নেতা সুফল ঘাটুর পাল্টা অভিযোগ, তৃণমূলের অন্তর্দ্বন্দ্বের জেরেই এই হামলা। তিনি বলেন, “বিজেপি কর্মীদের জেলে ঢোকানোর জন্যই বেছে বেছে তাঁদের নামে মিথ্যে অভিযোগ আনা হচ্ছে।”

এ দিকে অবস্থার অবনতি হওয়ায় বিধানবাবুর বাবা সুন্দরমোহনবাবুকে মঙ্গলবার কলকাতায় রেফার করেছেন ডায়মন্ডবারবার হাসপাতালের ডাক্তাররা।

Comments are closed.