বুধবার, নভেম্বর ২০
TheWall
TheWall

তৃণমূল করায় দম্পতিকে মার তুফানগঞ্জে, বিজেপি করায় নাটাবাড়িতে আক্রান্ত পরিবার

দ্য ওয়াল ব্যুরো, কোচবিহার : শাসকদলের সমর্থক এক দম্পতিকে বাড়ি ঢুকে বেধড়ক মারধরের অভিযোগ উঠল বিজেপির বিরুদ্ধে। জখম দম্পতিকে তুফানগঞ্জ মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

তুফানগঞ্জের বক্সিরহাটের বাসিন্দা ওই দম্পতি। তাঁদের নাম প্রদীপ বর্মন ও মিনতি বর্মন। অভিযোগ, তৃণমূলের সমর্থক হওয়ায় সম্প্রতি ওই দম্পতিকে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়। সেই টাকা দিতে অস্বীকার করেন তাঁরা। এই নিয়ে দু’তরফের টানাপড়েন চলছিল গত কয়েকদিন ধরে। বৃহস্পতিবার গভীর রাতে প্রদীপবাবুর বাড়িতে চড়াও হয়ে তাঁকে মারধর করে কয়েকজন দুষ্কৃতী। বাধা দিতে গেলে মারধর করা হয় তাঁর স্ত্রী মিনতিদেবীকেও। পরে পড়শিরা ছুটে এসে তাঁদের উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। প্রদীপবাবু বলেন, “আমরা তৃণমূলের বহু পুরনো কর্মী। কেন দল করি সেই অপরাধে বিজেপি টাকা চায় আমাদের কাছে। কেন টাকা দেব? আমরা থানায় অভিযোগ দায়ের করেছি।” বিষয়টি নিয়ে অবশ্য কোনও মন্তব্য করতে রাজি হননি বিজেপির স্থানীয় নেতৃত্ব।

এ দিকে, বিজেপি করার ‘অপরাধে’ একই পরিবারের চারজনকে বেধড়ক মারধরের অভিযোগ উঠল কোচবিহারেরই নাটাবাড়িতে। গতকাল রাতে ২৫-৩০ জনের একটি দল নাটাবাড়ি বিধানসভার মধ্য-বালাভূত এলাকার বিজেপি কর্মী ফজলে রহমানের বাড়িতে চড়াও হয় বলে অভিযোগ। লাঠি, বাঁশ দিয়ে এলোপাথাড়ি মারা হয় ফজলে রহমানকে। তাকে বাঁচাতে পরিবারের অন্যান্য সদস্যরা এগিয়ে এলে তাঁদেরও পেটায় ওই দুষ্কৃতীরা।

রাতেই আহত চারজনকে তুফানগঞ্জ মহকুমা হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। এদের মধ্যে দুজনের অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় তাঁদের কোচবিহার মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে স্থানান্তরিত করা হয়। বিষয়টি নিয়ে ইতিমধ্যেই পুলিশে অভিযোগ দায়ের করেছে পরিবার। তৃণমূল অবশ্য এ সমস্ত অভিযোগ অস্বীকার করেছে।

 

Comments are closed.