বৃহস্পতিবার, নভেম্বর ১৪

ডুয়ার্সে বেসরকারি বাস ধর্মঘটে নাকাল যাত্রীরা

দ্য ওয়াল ব্যুরো, জলপাইগুড়ি : একদিকে বেতন বৃদ্ধির দাবি, অন্যদিকে বাসকর্মীকে মারধরের প্রতিবাদে ডুয়ার্স জুড়ে শুরু হল বেসরকারি বাস ধর্মঘট। সকাল থেকেই বন্ধ জলপাইগুড়ি – ডুয়ার্স রুটের শতাধিক বেসরকারি বাস। ফলে চূড়ান্ত দুর্ভোগের মুখে যাত্রীরা। তৃণমূল প্রভাবিত বাস কর্মী সংগঠন অনির্দিষ্টকালের এই বাস ধর্মঘটের ডাক দিয়েছে।

বাসকর্মী সংগঠনের অভিযোগ, গত ৩১ শে জুলাই ডুয়ার্সগামী এক মিনিবাস চালকের সঙ্গে মালিক পক্ষের বচসা হয়। তার জেরে ওই বাস চালককে মারধর করা হয়। মালিক সংগঠনকে জানানো হলেও এই ঘটনায় থানায় এখনও কোনও অভিযোগ জানানো হয়নি।

আইএনটিটিইউসি প্রভাবিত বাস কর্মী সংগঠনের সভাপতি রাজেশ সাহা বলেন, “আমাদের এক সদস্যকে মারধর করেছে মালিক পক্ষ। আমরা বারবার জানিয়েও বিচার পাইনি। তাছাড়া বর্তমানে আমাদের বাসচালকদের নিত্য হাজিরা ১৩০ টাকা, কনডাক্টরদের ১০০ টাকা ও ক্লিনারদের মাত্র ৯০ টাকা। যা দিয়ে আর সংসার চলছে না। গত এক বছর ধরে বিভিন্ন ভাবে আবেদন নিবেদন করেও কাজ না হওয়ায় আজ থেকে বনধের রাস্তায় যেতে বাধ্য হলাম। যাত্রীদের কাছে আমরা ক্ষমাপ্রার্থী।”

এ দিন জলপাইগুড়ি থেকে যেমন বেসরকারি বাস ডুয়ার্সের দিকে যায়নি, তেমনই ডুয়ার্স থেকেও কোনও বাসকে জলপাইগুড়ি শহরে ঢুকতে দেওয়া হয়নি। রাজবাড়ি মোডে বাসগুলিকে আটকে দিয়েছেন ধর্মঘটীরা। তবে স্বাভাবিক ছিল সরকারি বাসের চলাচল। সুপ্রীতি সরকার নামে জলপাইগুড়ি-ডুয়ার্সের এক নিত্য যাত্রী জানান, এই রুটে সরকারি বাস কম হওয়ায় তিনি নিয়মিত বেসরকারি মিনি বাসে যাতায়াত করেন। কিন্তু এ দিন বেসরকারি বাস বন্ধ থাকায় বাধ্য হয়ে মালবাজার যাওয়ার জন্য সরকারি বাসে উঠতে হয়। তাঁর আশঙ্কা, ফেরার সময় সমস্যায় পড়তে হবে তাঁকে।

ডুয়ার্স বাস মালিক সংগঠনের সম্পাদক রঞ্জন পাল জানান, মারামারি সমস্যা আলোচনায় বসে তাঁরা মিটিয়ে নিয়েছেন। কিন্তু এখন নতুন দাবি হাজিরা বৃদ্ধি নিয়ে। তিনি বলেন, “সমস্ত বাস মালিকদের নিয়ে অবিলম্বে আলোচনায় বসবো আমরা। আশা করছি সমস্যা মিটে যাবে।”

Comments are closed.