বৃহস্পতিবার, ডিসেম্বর ৫
TheWall
TheWall

মাদক ইঞ্জেকশন দিয়ে গণধর্ষণের অভিযোগ, হাসপাতালে অসমের স্কুল ছাত্রী

দ্য ওয়াল ব্যুরো, মালদা : মামার বাড়িতে বেড়াতে এসে গণধর্ষণের শিকার হল অসমের এক স্কুল ছাত্রী।  মঙ্গলবার রাতে বামনগোলা থানার বোকাদহ গ্রামে দুষ্কৃতীদের কবলে পড়ে ওই ছাত্রী। রাতেই গুরুতর অসুস্থ ওই ছাত্রীকে ভর্তি করানো হয়েছে মালদা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে। কর্তব্যরত চিকিৎসকরা জানিয়েছেন, ওই ছাত্রীর শরীরে মাদকের নমুনা পাওয়া গেছে। 

নির্যাতিতা ওই ছাত্রীর পরিবারের অভিযোগ, মাদক খাইয়ে তাকে গণধর্ষণ করেছে এলাকারই চার যুবক। ঘটনার পর বামনগোলা থানায় অভিযোগ জানাতে গেলে পুলিশ প্রথমে অভিযোগ নিতে অস্বীকার করে। পরে অবশ্য চিকিৎসার কাগজপত্র দেখিয়ে সংশ্লিষ্ট থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেছেন তাঁরা।

ওই ছাত্রীর মামি বলেন,  ‘‘অসমের লঙ্কা এলাকায় থাকে আমার ভাগ্নি। ওখানকার একটি স্কুলে ক্লাস ইলেভেনে পড়ে। দুদিন আগে আমাদের বাড়িতে বেড়াতে আসে। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় মেলা দেখানোর নাম করে স্থানীয় চার যুবক তাকে ডেকে নিয়ে যায়। তারপর থেকেই তার আর খোঁজ পাওয়া যাচ্ছিল না। মধ্যরাতে বাড়ির দরজার সামনে অচৈতন্য অবস্থায় পাওয়া যায় তাকে। তড়িঘড়ি মালদা মেডিক্যাল কলেজ ও হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। কী ভাবে অভিযুক্তরা তাকে নির্যাতন করেছে জ্ঞান ফেরার পর সব কথাই বলে দিয়েছে সে।’’ 

ওই ছাত্রীর শরীরের বিভিন্ন জায়গায় সুঁচ ফোটানোর চিহ্ন পাওয়া গেছে। অনুমান, মাদক ইঞ্জেকশন দিয়ে বেঁহুশ করে তাকে ধর্ষণ করে অভিযুক্তরা। পুলিশকে জানালে প্রাণনাশেরও হুমকি দেয় তারা।

ঘটনার প্রতিবাদে ক্ষোভে ফুঁসছে গোটা এলাকা। পুলিশ জানিয়েছে, অভিযুক্তরা পলাতক। তাদের খোঁজে তল্লাশি চলছে।

Comments are closed.